গাঁজা বিক্রি করে মাসে ৮০ লাখ টাকা আয় করেন জয়দেব!

Posted by

জয়দেব দাস। চেহারা দেখে বোঝার উপায় নাই তিনি অনেক টাকা পয়সার মালিক। রয়েছে দামি গাড়ি, বিদেশি কুকুর। এছাড়া নিজের নিরাপত্তার জন্য প্রতি মাসে খরচ করেন ৫৬ হাজার টাকা।

জয়দেবের ‘হোমরাচোমরা’ হাবভাব দেখে প্রতিবেশীরা কেউই জানতেন না তিনি আসলে ঠিক কী কাজ করেন।

কিন্ত বুধবার কলকাতা পুলিশ তাকে গ্রেফতার করার পরে জানা যায়, জয়দেব আসলে মাদকের কারবারি।

পুলিশের বরাত দিয়ে আনন্দবাজারের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রতি মাসে মোট ১৬০০ কেজি গাঁজা আসত জয়দেবের কাছে। তা নিজের বিলাসবহুল ফ্ল্যাট এবং বাবা-মার বস্তির ঘরে লুকিয়ে রাখতেন তিনি।

তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, কেজি প্রতি ৫ হাজার টাকায় গাঁজা বিক্রি করতেন জয়দেব। মাদক পাচারকারীদের কাছে ট্যাংরা এলাকার ‘ডন’ বলে পরিচিত ছিলেন তিনি।

শিয়ালদহ, গড়িয়া এলাকায় গাঁজা সরবরাহ করতেন জয়দেব। গাঁজা কোথা থেকে পেত, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। পুলিশের দাবি, জয়দেবের পরিবারের লোকজনও মাদক কারবারের সঙ্গে জড়িত।

পুলিশের দাবি, পাঁচ-ছয় বছর ধরে মাদক কারবার চালালেও এক তৃণমূল নেতার ছত্রছায়ায় থাকায় জয়দেব ধরাছোঁয়ার বাইরে ছিলেন।