সাকিবের দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে ‘প্লে অফে’ বার্বাডোজ

Posted by

বার্বাডোজের জন্য যেন ‘আলাদিনের’ চেরাগ হয়ে বাংলাদেশ থেকে উড়ে গিয়েছেন সাকিব আল হাসান। শনিবারের (২৯ সেপ্টেম্বর) ম্যাচে ব্যাটে-বলে দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের পর আজ (৩০ সেপ্টেম্বর) আবারো উজ্জ্বল সাকিবের পারফরম্যান্স। আজ ব্যাট হাতে ২১ বলে ২২ রান করলেও বল হাতে মাত্র ২০ রান দিয়ে নিয়েছেন ভয়ঙ্কর কলিন ইনগ্রামের উইকেট। তার এই দুর্দান্ত পারফরম্যান্সেই সেন্ট লুসিয়া জুকসকে ২৪ রানে হারিয়ে ‘প্লে অফে’ জায়গা করে নিয়েছে বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টস।

বার্বাডোজের কেনসিংটন ওভালে অলিখিত কোয়ার্টার ফাইনালে আজ সেন্ট লুসিয়া জুকসের বিপক্ষে মাঠে নামে সাকিবের বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টস। হারলেই বাদ এমন সমীকরণে প্রথমে ব্যাট করতে নামে বার্বাডোজ।

ব্যাটিংয়ে নেমে ইনিংসের প্রথম ওভারেই ওপেনার অ্যালেক্স হেলসকে হারায় তারা। তবে দ্বিতীয় উইকেটে জনসন চার্লসকে নিয়ে ৬২ রানের জুটি গড়ে বার্বাডোজকে বড় সংগ্রহের ভিত্তি গড়ে দেন সাকিব। তিনি নিজে ২১ বলে ২ চারের সাহায্যে ২২ রান করে ফিরে গেলেও চার্লস করেন ৪৭ রান।

তবে শেষদিকের ব্যাটসম্যানরা বড় ইনিংস খেলতে ব্যর্থ হলে শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৪১ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়ে বার্বাডোজ৷

১৪২ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নামা সেন্ট লুসিয়া শুরুটা করে দুর্দান্ত। আক্রমণাত্মক ব্যাটিং করে মাত্র ৮ ওভারেই দলের স্কোর ৭৭ রানে নিয়ে যান কলিন ইনগ্রাম। কিন্তু এর মাঝেও সাকিব ছিলেন দুর্দান্ত। আজও বল হাতে ওপেন করা সাকিব তখনও কোন উইকেট না পেলেও রান দেয়াতে ছিলেন একদম কৃপণ। তবে ইনিংসের নবম ওভারে এসে প্রথম বলেই মাত্র ১৭ বলে ২৫ রান করা কলিন ইনগ্রামকে ফিরিয়ে দেন তিনি। আর এরপরেই সেন্ট লুসিয়াকে চেপে ধরে বার্বাডোজের বোলাররা। সাকিব নিজের চার ওভারে মাত্র ২০ রান দিয়ে নেন মহামূল্যবান একটি উইকেট। তার করা ২৪ বলের ১১টিই ছিল ডট।

এরপর বাকি কাজটি করেন লেগস্পিনার হেইডেন ওয়ালশ ৩.৪ ওভারে মাত্র ২৬ রান দিয়ে ৪ উইকেট নেন তিনি ফলে মাত্র ১১৭ রানেই গুটিয়ে যায় সেন্ট লুসিয়া। আর এতে ২৪ রানের জয় নিয়ে চতুর্থ দল হিসেবে শেষ চারে জায়গা করে নেয় সাকিবের বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টস।